এখন বিদেশী বিনিয়োগকারীদের জন্য ভারতে বিনিয়োগের প্রক্রিয়া সহজ হবে

এমনটি নয় যে প্রথমবারের মতো ভারতে বিদেশী বিনিয়োগ আসবে। এখানে ইতিমধ্যে অনেক বিদেশী সংস্থা ব্যবসা করছে। এখন কেবলমাত্র পার্থক্য হল বিদেশী সংস্থাগুলি এখানে সহজে বিনিয়োগ করতে সক্ষম হবে। বিদেশী পোর্টফোলিও বিনিয়োগকারীদের (এফপিআই) জন্য ভারতে বিনিয়োগ করা এখন সহজতর হয়ে উঠবে।

বুধবারের বৈঠকে পুঁজি বাজার এবিং সেবি বোর্ড জানিয়েছে যে তারা গ্রাহকদের জন্য কেওয়াইসি বিধিটিকে সহজ করে তুলেছে। এছাড়া বাজারের বাইরে বিদেশি বিনিয়োগকারীদের তালিকাভুক্তকরন, স্থগিতকরন এবং বিদেশী বা দেশীয় বিনিয়োগকারীদের কাছে স্থানান্তর করার অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

ভারতের বাজারে আরও বেশি বিদেশী মূলধন আকর্ষণ করার জন্য সেবি কেন্দ্রীয় ব্যাংকগুলোকে যারা ইন্টারন্যাশনাল ব্যাঙ্ক অফ সেটেলমেন্ট -এর সদস্য নয়, তাদের এফপিআই নিবন্ধন করার অনুমতি দিয়েছে। সেবি এক বিবৃতিতে বলেছে যে নতুন বিধি অনুসারে এফপিআই গুলিকে দুটি বিভাগে শ্রেণিবদ্ধ করা হবে। এগুলো আগে তিনটি বিভাগে বিভক্ত ছিল।

একই সাথে কেওয়াইসি-র জন্য ডকুমেন্টের প্রয়োজনীয়তা সহজ করা হয়েছে। আরবিআইয়ের প্রাক্তন ডেপুটি গভর্নর এইচআর খানের শীর্ষস্থানীয় কমিটির সুপারিশ অনুসারে এফপিআই বিধিগুলি নতুনভাবে তৈরি করা হয়েছে। এছাড়াও, অফশোর ডেরাইভেটিভ ইন্সট্রুমেন্ট (ওডিআই ) জারি করা এবং প্রাপ্তির শর্তগুলি সরল করা হয়েছিল।

মিউচুয়াল ফান্ড দ্বারা জারি করা অফশোর ফান্ডগুলি এফপিআই হিসাবে নিবন্ধনের পরে দেশে বিনিয়োগের অনুমতি দেওয়া হয়েছে। এফপিআইয়ের শর্তাদি পূরণের জন্য ইন্টারন্যাশনাল ফিনান্সিয়াল সার্ভিসেস সেন্টার (আইএফএসসি) দ্বারা প্রতিষ্ঠিত সংস্থাগুলি অন্তর্ভুক্ত রয়েছে। মাল্টিপল ইনভেস্টমেন্ট ম্যানেজার (এমআইএম) -এর জন্য নিবন্ধকরণ কাঠামো সহজ করা হয়েছে।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*